Monday, May 27, 2024

ব্যাংকে পড়ে দাবিহীন কোটি কোটি টাকা, দেশবাসীকে বিলিয়ে দেবে RBI! টাকা পেতে করতে হবে এই কাজ

দেশব্যাপী বিভিন্ন বন্ধ হয়ে যাওয়া সেভিংস ব্যাংক একাউন্ট (Savings bank account) গুলোতে পড়ে আছে কোটি কোটি টাকা। যেই টাকার কিনা কেউ কোন দাবিদার নেই। মিডিয়া রিপোর্ট অনুযায়ী দেশ ব্যাপী বন্ধ হয়ে যাওয়া বিভিন্ন সেভিংস ব্যাংক একাউন্ট গুলোতে দাবি হীন হিসেবে পড়ে রয়েছে ১০০ কোটি টাকার কাছাকাছি। আর এই টাকাই এখন মাথার ব্যাথা কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে RBI এর।

RBI জানিয়েছে যে, বন্ধ হয়ে যাওয়া এসব ব্যাংক একাউন্ট গুলোর কেউ কোন দাবিদার নেই। বহু বছরের পুরনো এসব সেভিংস অ্যাকাউন্ট গুলো লেনদেন অথবা ডকুমেন্টস এর অভাবে বন্ধ হয়ে গিয়েছিল। আর এসব বন্ধ হয়ে যাওয়া ব্যাংক একাউন্ট গুলোতে পড়ে রয়েছে কোটি কোটি টাকা। তাই RBI উদ্যোগ নিয়েছিল যে এসব টাকার মালিকানাধীন যারা তাদের খুঁজে বের করে তাদের ব্যাংক একাউন্টে টাকা পাঠিয়ে দেয়া হবে। কিন্তু RBI এর এই উদ্যোগ সম্পূর্ণরূপে ব্যর্থ হয়। বন্ধ হয়ে যাওয়া এসব সেভিংস একাউন্ট গুলোর কোন দাবিদার খুঁজে পাওয়া যাচ্ছিল না। তাই RBI একটি নতুন উদ্যোগ নিয়েছে ব্যাংকে পড়ে থাকা সেই দাবি হীন টাকা তাদের উত্তরাধিকারীদের হাতে তুলে দেয়ার।

Rupee

RBI চালু করেছে একটি পোর্টাল যেখানে রেজিস্ট্রেশন করার মাধ্যমে দেশবাসীর ব্যাংক একাউন্টে পৌঁছে যাবে সেই দাবি হীন টাকা। তবে দাবি হীন সেই টাকা পেতে হলে সবার প্রথমে তার উত্তরাধিকার হতে হবে আপনাকে। নিজেকে সেই টাকার উত্তরাধিকার প্রমাণ করতে পারলেই আপনিও ভাগ পাবেন সেই ১০০ কোটি টাকা থেকে। এর জন্য আপনাকে RBI এর জারি করা udgam.rbi.org.in এই অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে ভিজিট করতে হবে। এরপর প্রয়োজনীয় নথিপত্র দিয়ে নিজেকে নিবন্ধ করতে হবে সেই ওয়েবসাইটে।

জানিয়ে রাখি যে, সাধারণ কোন ব্যাংক একাউন্ট থেকে যদি ২ বছর কিংবা তারও বেশি সময় ধরে কোন লেনদেন না করা হয় তাহলে সেই ব্যাংক একাউন্টকে বন্ধ বলে ধরা হয়। এবং একাউন্টে যা টাকা থাকে তা আটকে যায় এরপর তা KYC করার মাধ্যমে বন্ধ ব্যাংক একাউন্ট পুনরায় চালু করা যায়। তাই সম্ভবনা রয়েছে যে আপনার যদি দাদু কিংবা বাড়িতে যদি কোন বয়স্ক ব্যাক্তি থাকেন যাদের কিনা কখনো ব্যাংক একাউন্ট ছিল এবং তিনি ভুলে গেছেন সেই কথা এবং সেই একাউন্টে যদি টাকা থাকে তাহলে আপনিও RBI এর জারি করা সেই পোর্টালে গিয়ে টাকার জন্য দাবি করতে পারেন।

আপনার জন্য
WhatsApp Logo