Monday, May 27, 2024

শীতকালে বিদ্যুৎ বিল বেড়ে যাওয়া নিয়ে চিন্তিত? মিটারের গতি কমিয়ে দিন এইভাবে

কনকনে ঠান্ডায় কাঁপছে পুরো বাংলা তথা দেশ। আর এই ঠান্ডায় বেড়েছে বিদ্যুতের চাহিদা। কেননা এই ঠান্ডার হাত থেকে বাঁচতে অনেক বাড়িতেই এখন হিটার ও গিজার ব্যবহার হচ্ছে। ফলে বাড়ছে বিদ্যুত বিল। কারণ এই সমস্ত শীতকালীন ইলেকট্রিক সরঞ্জাম গুলো গরম কালে চালিত ফ্যান এবং এসির থেকেও বেশি বিদ্যুৎ শোষণ করে থাকে। তাই আপনি যদি শীতকালে আপনার বিদ্যুৎ বিল নিয়ে চিন্তিত থাকেন তাহলে ফলো করুন বেশ কয়েকটি টিপস। এবং সবশেষে রয়েছে কিভাবে মিটারের মাধ্যমে আপনি ৪০ শতাংশ পর্যন্ত বিদ্যুৎ সাশ্রয় করতে পারবেন।

এভাবে বিদ্যুৎ বিল বাঁচানঃ 

১) গিজার ব্যবহার কমিয়ে দিন- খানিকটা হলেও এই শীতকালে গিজার কম ব্যবহার করুন। শীতকালে সাপ্তাহের ৭ দিনের বদলে অন্তত ৫ দিন জল গরম করুন গিজারে আর বাকি ৩দিন গ্যাসে জল গরম করুন। দেখবেন বিদ্যুৎ অনেকটাই কম অপচয় হবে। এবং শীতকালে বিদ্যুৎ বিল কম আসবে আপনার।

২) জানালা-দরজা বন্ধ রাখুন- শীত মৌসুমে ঘরের তাপমাত্রা ঠিক রাখতে হলে অতিরিক্ত জানালা-দরজা বন্ধ রাখুন। এবং ঘর আলো রাখার জন্য একটি কম বিদ্যুৎ শোষণ যুক্ত এলইডি লাইট (LED bulb) ব্যবহার করুন।

৩) অ্যামাজন থেকে ৫০০ টাকার বিনিময়ে Wellberg Power Saver নামে এই মেশিনটি কিনতে পারেন। এই মেশিনটি শুধুমাত্র মিটারের পাশে বসিয়ে দিলেই মেশিনটি অতিরিক্ত ইলেকট্রিক ফ্লো নিয়ন্ত্রণ করে বৈদ্যুতিক প্যানেলের ক্যাপাসিট্যান্স এবং পাওয়ার সার্জকে ঠান্ডা করে ৪০ শতাংশ পর্যন্ত বিদ্যুৎ সাশ্রয় করবেন আপনার। মেশেনটি কিনতে হলে অ্যামাজনের ওয়েবসাইটে যেতে হবে আপনাকে।

জানিয়ে দেই রাজধানী দিল্লিতে হাড় কাঁপানো এই ঠান্ডার কারণে বিদ্যুতের সর্বোচ্চ চাহিদা দুই বছরের তুলনায় এই বছরে ৫,২৪৭ মেগাওয়াটে বৃদ্ধি পেয়েছে। এছাড়াও দেশের বাকি শহর গুলোতে সকাল ১০:৫৬ থেকে শুরু করে বিকাল ৫:০০ পর্যন্ত বিদ্যুতের চাহিদা ৫,২৪৭ মেগাওয়াটে পৌঁছেছে। তাই বিদ্যুতের খরচ বাঁচাতে উপরের নিয়ম গুলো অনুসরণ করুন।

আপনার জন্য
WhatsApp Logo