Wednesday, June 12, 2024

চলবে না আর ২,০০০ টাকার নোট, বাতিল করলো RBI, এই দিনের মধ্যে জমা দিতে হবে ব্যাংকে

আপনার কাছে কি ২,০০০ টাকার নোট আছে? তাহলে এই মুহূর্তে আপনার জন্য রইলো একটি বড় খবর। জানা গেছে যে, ভারতীয় কেন্দ্রীয় ব্যাংক তথা রিজার্ভ ব্যাংক অফ ইন্ডিয়া RBI ব্যান করে দিল ২০০০ টাকার নতুন নোট। অর্থাৎ আপনার কাছে যদি কোন ২,০০০ টাকার নোট থেকে থাকে তা এই মুহূর্তে অচল বলা চলে।

—–

মিডিয়া রিপোর্ট অনুযায়ী, হঠাৎ করে কেন বাতিল করা হল ২,০০০ টাকার নোট? এই মুহূর্তে তেমন কোন খবর আমাদের কাছে নেই। তবে আপনার কাছে যদি ২,০০০‌ নোট থেকে থাকে তাহলে তা ৩০ সেপ্টেম্বরের (September) মধ্যে ব্যাংকে গিয়ে জমা করে আসতে হবে। তবে RBI জানায় যে, ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত নোটটি সচল রয়েছে।

Rupee

এই বিষয়ে পরবর্তী আপডেট পাওয়ার জন্য আমাদের সঙ্গে থাকুন। অথবা আমাদের WhatsApp গ্ৰুপে জয়েন হন।

 

Update: ২০১৬ সালের ৮ই নভেম্বর, মধ্য রাতের এক ঘোষণায় ভারতের তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র মোদী, বাজারে চলতি সমস্ত পাঁচশত এবং এক হাজার টাকার নোট বাতিল বলে ঘোষণা করেছিলেন। নোট বাতিলের প্রধান কারণ ছিল বাজারে ছড়িয়ে থাকা অতিরিক্ত কালো টাকা সরিয়ে ফেলা। কিন্তু হটাৎ করে সমস্ত পাঁচশত এবং এক হাজার টাকার নোট বাতিল করার ফলে স্বাভাবিক ভাবেই বাজারে নোটের ঘাটতি দেখা দিয়েছিল। সেই নোটের ঘাটতি মেটানোর জন্যেই সরকার নতুন ধরনের পাঁচশত এবং দুই হাজার টাকার নোট চালু করে। কিন্তু দীর্ঘ সাত বছর চলার পর ২০২৩ সালের ১৯শে মে, সরকার সেই ২০০০ টাকার নোটও বাতিল বলে ঘোষণা করে।।

 

নোট বন্ধ করার কারণ:

২০১৬ সালে হটাৎ করেই নোট বাতিল করা হয়েছিল বলে বাজারে যথেষ্ট নোটের ঘাটতি দেখা দিয়েছিল। অল্প সময়ে সেই ঘাটতি মেটানোর জন্য নতুন পাঁচশত টাকার নোটের সঙ্গে নতুন দুই হাজার টাকা নোটও শুরু করা হয়। কিন্তু বর্তমানে নতুন ৫০০ টাকার নোটের সাথে সাথে অন্যান্য সমস্ত ধরনের নোটের যথেষ্ট পরিমাণে যোগান রয়েছে বলে, সরকার ২০০০ টাকার নোট বাতিল করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। ২০২৩ সালে দুই হাজারের নোট বাতিল করা হলেও, ২০১৮ সাল থেকেই রিজার্ভ ব্যাংক অফ ইন্ডিয়া দুই হাজার টাকার নোট ছাপানো বন্ধ করে দিয়েছিল।।

আপনার জন্য
WhatsApp Logo