Monday, May 27, 2024

ব্যাংক একাউন্ট থেকে কাটা যাচ্ছে ৪৩৬ টাকা! ব্যালান্স না থাকলে অতিশীঘ্রই করুন জমা, বড় নির্দেশ

প্রায়শই গ্রাহকদের ব্যাংক একাউন্ট থেকে টাকা কেটে নেওয়ার ঘটনা খবরে উঠে আসে। ব্যাংক গুলো সাধারণত প্রতি বছর এটিএম মেইনটেনেন্স এবং ডেবিট কার্ড রক্ষণাবেক্ষণের চার্জ সহ আরও বিভিন্ন কাজের চার্জ হিসেবে এই টাকা কেটে থাকে তাদের গ্রাহকদের একাউন্ট থেকে। যদিও বিভিন্ন ব্যাংকের আলাদা আলাদা চার্জ রয়েছে এগুলোর প্রতি। কিন্তু সম্প্রতি ব্যাংক গুলো আরো একবার গ্রাহকদের একাউন্ট থেকে কাটতে চলেছে ৪৩৬ টাকা করে। আর এতে করে অনেকেই ঘাবড়ে গেছেন। কারণ না তো এই টাকা কাটা হচ্ছে এটিএম মেইনটেনেন্সের চার্জ হিসেবে না তো ডেবিট কার্ড রক্ষণাবেক্ষণের চার্জ হিসেবে। তাহলে কেন কাটা হচ্ছে গ্রাহকদের একাউন্ট থেকে ৪৩৬ টাকা?

গ্রাহকদের একাউন্ট থেকে ৪৩৬ টাকা কেটে নেওয়া হচ্ছে এমন অভিযোগ দেখা গিয়েছে বহু গ্রাহকের মুখে। আসলে আজকাল অধিকাংশ মানুষেরই ব্যাংক একাউন্ট কিংবা পোস্ট অফিসে (post office) টাকা জমা রাখেন। পোষ্ট অফিসের বিভিন্ন স্কিমে টাকা বিনিয়োগ করে থাকেন বহু মানুষ। অন্যদিকে যারা ব্যাংকে টাকা জমা রাখেন তারাও বিভিন্ন সরকারি স্কিমের সুবিধা নিয়ে থাকেন। এমতাবস্থায় সরকারের একটি স্কিম যার নাম হচ্ছে প্রধানমন্ত্রী জীবন জ্যোতি বীমা যোজনা (Pradhan Mantri Jeevan Jyoti Bima Yojana) স্কিম। এই স্কিমে ১৮ থেকে ৫০ বছর বয়সী লোকেরা নিজেদের নাম নথিভুক্ত করতে পারবেন। এবং নাম নথিভুক্ত সহিত অটো ডেভিডের মাধ্যমে তাদের ব্যাংক একাউন্ট থেকে এই ৪৩৬ টাকা কেটে নেয়া হচ্ছে।

Bank-of-Baroda

প্রায় প্রত্যেক ব্যাক্তির ব্যাংক একাউন্ট থেকেই এই ৪৩৬ টাকা কাটা হচ্ছে প্রধানমন্ত্রী জীবন জ্যোতি বীমা যোজনায় নাম নথিভুক্ত করনের জন্য। এমতাবস্থায় আপনি যদি না চান এই ৪৩৬ টাকা আপনার একাউন্ট থেকে টাকা যাক তাহলে নিকটবর্তী পোস্ট অফিস কিংবা ব্যাংকে গিয়ে আপনার নাম ফিরিয়ে নিতে পারেন এই স্কিম থেকে। জানিয়ে রাখি যে, এই প্রক্রিয়া ৩১ মে আগে সারতে হবে।

আপনার জন্য
WhatsApp Logo