Saturday, June 22, 2024

দশম শ্রেনী পাস হলেই খুলুন নিজের CSC সেন্টার, লাইসেন্স সরকার নিজেই করে দেবে আপনাকে

দেশে শিক্ষিত বেকার যুবক-যুবতীদের সংখ্যা কম নয়। কারণ বেশিরভাগ শিক্ষিত যুবক-যুবতীরাই চাইছে সরকারী চাকরি (government job) করতে। কিন্তু দেশের সমস্ত শিক্ষিত যুবক-যুবতীদের তো আর একবারে সরকারি চাকরি দেওয়া কোন ভাবেই সম্ভব নয়। কোন দেশ কিংবা কোন রাজ্যের এই ক্ষমতা নেই। তাই এক্ষেত্রে আপনার উচিত সরকারি চাকরির আশায় না থেকে কোন একটি ব্যবসা করা কিংবা বেসরকারি সংস্থাগুলোতে চাকরি নেওয়া। তাই আপনি যদি একজন মাধ্যমিক পাশ যুবক-যুবতী হয়ে থাকে আপনার জন্য রয়েছে একটি দারুণ বিজনেস আইডিয়া (business idea)।

 

খুলুন নিজের CSC সেন্টার। এই CSC সেন্টার থেকে মাস গেলে কয়েক লক্ষ টাকা উপার্জন করতে পারবেন আপনি। আর এই CSC সেন্টার খোলার জন্য অবশ্যই লাইসেন্সের প্রয়োজন পড়বে। তবে আপনার লাইসেন্স নিয়ে কোন চিন্তা করতে হবে না। কারণ সরকার নিজেই আপনাকে এই লাইসেন্স তৈরি করে দেবেন। জেনে রাখুন এই CSC সেন্টার হলো একটি ব্যাংকের ছোট্ট শাখার মতো, যেখান থেকে কেউ টাকা লেনদেন করলে আপনি সেই টাকা থেকে কিছু কমিশন পাবেন।

SBI customer

যেভাবে খুলবেন CSC সেন্টার– এই সেন্টার খোলার জন্য আপনাকে গ্রামীন এলাকা বেছে নিতে হবে। যেখানে ব্যাংক (Bank) গুলো সচরাচর খুবই দূরে অবস্থিত। আর এমন জায়গা বেঁচে নিলে আপনার দোকানে কাস্টমারের অভাব হবে না। এই CSC সেন্টার খোলার জন্য আপনাকে http://www.cscentrepreneur.in/ এই ওয়েবসাইট প্রথমে আবেদন করতে হবে। এবং আবেদন ফি বাবদ আপনাকে ৪৭৯ টাকা দিতে হবে। এবং আপনার আবেদন পত্রটি গ্রহণ করা হলে একটি পরিক্ষা দিতে হবে আপনাকে। কি পরিক্ষা, পরিক্ষার সিট কোথায় পড়তে, এই সমস্ত কিছু আপনি http://www.cscentrepreneur.in/ এই ওয়েবসাইটেই আবেদন করার সময়ই পেয়ে যাবেন।

শিক্ষাগত যোগ্যতা– আপনি দশম শ্রেনী পাশ হলেই CSC সেন্টার খোলার জন্য উপযুক্ত। তবে শুধু দশম শ্রেনী পাশ হলেই হবে না সাথে থাকতে হবে TEA অর্থাৎ টেলিকমিউনিকেশন ইঞ্জিনিয়ারিং সেন্টারের সার্টিফিকেট। পাশাপাশি কম্পিউটারে নলেজ, বাংলা এবং ইংরেজি ভাষা জানতে হবে আপনাকে।

আপনার জন্য
WhatsApp Logo